1. mtishopon@gmail.com : sangbaddinraat.com :
  2. minhajul@sangbaddinraat.com : Minhajul Bari : Minhajul Bari
  3. news@sangbaddinraat.com : Sangbad Dinraat : SD News
রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭:৪৪ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
**** বহুল প্রচারিত অনলাইন নিউজ পোর্টাল সংবাদ দিনরাত সারাদেশে জেলা, থানা/উপজেলা এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্যাম্পাস প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে ***  

আদমদীঘিতে মোবাইল ফোনে সম্পর্ক করে প্রেমিকের বাড়িতে প্রেমিকা; এলাকায় তোলপাড়

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম শুক্রবার, ৪ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৬৫ বার পড়া হয়েছে

মোবাইল ফোনে প্রেমের সম্পর্ক করে বগুড়ার আদমদীঘিতে প্রেমিকের বাড়িতে প্রেমিকা আকষ্মিক উপস্থিত হওয়ায় এলাকায় তোলপাড়ের সৃষ্টি হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার গভীর রাতে উপজেলার শিবপুর গ্রামের সুমন ওরফে তুহিন (২২) এর বাড়ি থেকে পুলিশ সুমন ও তার কথিত প্রেমিকা(৪২) কে থানায় নিয়ে আসেন। সুমন ওই গ্রামের মৃত মহির উদ্দীনের ছেলে ও কথিত প্রেমিকা যশোর জেলার মনিরামপুর উপজেলার মুজবুন্নী গ্রামের বাসিন্দা। তাদের সম্পর্কে ভুল বোঝাবুঝি হওয়ায় আজ শুক্রবার দুপুরে পুলিশ সুমন ও তার কথিত প্রেমিকাকে নিজ নিজ মুচলেকা নিয়ে পরিবারের জিম্মায় ছেড়ে দেয়া হয়েছে বলে থানার উপ-পরিদর্শক সোলায়মান আলী জানান।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, সাত মাস যাবত আদমদীঘির সুমনের সাথে যশোহরের মনিরামপুরের ওই নারীর মোবাইল ফোনে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। তাদের প্রেম সম্পর্ক আরো মধুর হওয়ায় গত বৃহস্পতিবার প্রেমিকা তার বাড়ি থেকে ছুটে আসেন প্রেমিক সুমনের বাড়ি আদমদীঘির শিবপুর গ্রামে। ঘটনাটি গ্রামে তোলপাড়ের সৃষ্টি হলে রাত ১২টায় পুলিশ খবর পেয়ে কথিত প্রেমিক যুগলকে থানায় নিয়ে আসেন। ওই নারী প্রেমিকা জানায়, প্রায় ছয়-সাত মাস যাবত সুমনের সাথে তার মোবাইল ফোনে প্রেম সম্পর্ক হয়। তার ঘর-বাড়ি দেখার জন্য যশোর থেকে সুমনের বাড়ি আদমদীঘিতে আসি। প্রেমিক সুমন বিসয়টি স্বীকার করেন।

আদমদীঘি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জালাল উদ্দীন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, তাদের মধ্যে বয়সের ব্যবধান ও ভুল বোঝাবুঝির কারনে এমন ঘটনার সুত্রপাত হয়েছে। ওই নারীকে তার পরিবারের জিম্মায় ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

প্রযুক্তি সহায়তায় মাল্টিকেয়ার